• মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:২৬ পূর্বাহ্ন
Notice
We are Updating Our Website

ঈদে যে কারণে পাঞ্জাবি কিনবেন না রেহান

নিজস্ব প্রতিবেদক
আপডেট : মঙ্গলবার, ২ এপ্রিল, ২০২৪

পুরো নাম ফররুখ আহমেদ। তবে ফ্যাশন ইন্ডাস্ট্রিতে তিনি রেহান নামে পরিচিত। ফ্যাশন হাউস ‘মেহের বাই সামিনা সারা’র মডেল হয়ে সম্প্রতি ভাইরাল হলেও রেহান কিন্তু ইন্ডাস্ট্রিতে কাজ করছেন অনেক বছর। র‌্যাম্প, টিভিসি, ওভিসি কিংবা বড় বড় ফ্যাশন হাউসের শুটগুলোয় থাকে তাঁর সরব উপস্থিতি। হাল আমলের জনপ্রিয় এই মডেল জানালেন, ঈদের কাজ নিয়ে বেশ ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন এখন।

ঈদে পাঞ্জাবি পরতে ভালোবাসেন রেহান। কাজের চাপে আলাদা করে ঈদের কেনাকাটা করার সময় হয়ে ওঠেনি। তবে বিভিন্ন ফ্যাশন হাউস থেকে প্রতি ঈদেই উপহার পান। সেখান থেকে যেকোনো একটি পাঞ্জাবি ঈদের দিন পরার জন্য বেছে নেবেন। সাধারণত সলিড কালার বা এক রঙের পাঞ্জাবি পরতে ভালোবাসেন। ‘আসলে নিজের পোশাক কেনার চেয়ে মা-বাবার জন্য কেনাকাটা করতেই এখন বেশি ভালো লাগে,’ বলছিলেন রেহান।

রেহান বড় হয়েছেন টাঙ্গাইল শহরে। সেখানেই থাকে তাঁর পরিবার। ঈদের দিনটি তাঁর সেখানেই কাটবে। দুই ভাই এক বোনের মধ্যে রেহান ছোট। ছোটবেলায় বাবা যেমন হাত ধরে নিয়ে ঈদে নতুন জামা কিনে দিতেন, এখন রেহানও তেমনি মা-বাবাকে নিয়ে ঈদের পোশাক কিনে দেন। ‘আমি আসলে কখনো নিজে তাঁদের জন্য কিছু কিনি না। তাঁদের সঙ্গে নিয়ে কিনে দিতেই বেশি আনন্দ পাই। আসলে মধ্যবিত্ত পরিবারের বড় হয়েছি তো, মা-বাবাকে নিয়ে কেনাকাটার সময় অন্য রকম আবেগ কাজ করে।’

ঈদের দিন বাবা ও ভাইয়ের সঙ্গে নামাজ পড়ে শুরু হয় রেহানের সকাল। এরপর বাড়ি ফিরে মায়ের রান্না করা মজাদার সব খাবার খান। রেহান বলছিলেন, তাঁর মায়ের হাতের পায়েস আর সেমাই একেবারেই অন্য রকম। খাওয়াদাওয়া শেষে লম্বা ঘুম দেন। বিকেলে বন্ধুদের সঙ্গে টাঙ্গাইল শহরে বাইকে করে ঘুরে বেড়ান। আর এভাবেই কেটে যায় রেহানের ঈদের দিন।

‘আসলে খুব সাধারণ জীবন যাপন করতে ভালোবাসি। ঈদের দিনটিও তেমনি আর দশজন মানুষের মতো সাধারণভাবে কাটে। বাবা, মা, বন্ধু, আত্মীয়দের নিয়ে ঈদ কাটানোর আনন্দ আমার কাছে


আপনার মতামত লিখুন :
এ জাতীয় আরও খবর