• বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ১১:১৬ পূর্বাহ্ন

ছুটির দিনে বইমেলায় ভিড়

নিজস্ব প্রতিবেদক
আপডেট : শুক্রবার, ১৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪

জমে উঠেছে বইমেলা। সাপ্তাহিক ছুটির দিনে নানা বয়সী মানুষ ছুটে এসেছে মেলায়। এদিন মেলা ১১টা থেকে শুরু হলেও দুপুর ৩টার পর থেকে ভিড় বাড়তে শুরু করে। মেলায় আগতদের বেশিরভাগই সপরিবারে এসেছেন। কেউ এসেছেন বন্ধু-বান্ধবীদের সঙ্গে। স্টলগুলোতে ভিড় করছেন ক্রেতারা। অন্যদিকে প্রতিদিনের মতো নতুন বইয়ের ঘোষণা আসছে মেলার মঞ্চ থেকে। ছুটির দিনেও মেলায় বিভিন্ন ধরনের বই এসেছে।

শুক্রবার (১৬ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে মেলা প্রাঙ্গণ ঘুরে এমন চিত্র দেখা যায়।

যাত্রাবাড়ী থেকে তিন বন্ধু জসিম, পলাশ ও প্রান্ত এসেছেন মেলায়। এ বছর মেলায় প্রথমবারের মতো এসেছে তারা। কথা হলো প্রান্তর সঙ্গে। তিনি জানান, মেলায় উপন্যাসের বই নেওয়ার জন্য এসেছেন। তবে কোন লেখকের বই কিনবেন, তা তখনো ঠিক করতে পারেননি। তবে তিনি উপন্যাসের বই কিনতে চাইলেও তারই বন্ধু পলাশ চান জীবন গঠন করতে সহায়তা করবে —এমন বই কিনতে।

পলাশের ভাষ্যমতে, প্রেম দিয়ে তো জীবন চলে না, বাস্তবতায় শিখতে জানতে হয়। আর জসিম খুঁজছেন কবিতার বই। তিনি জানান, কবিতার বই অন্য সময়ে ভালো পাওয়া যায় না, তাই আজ দেখে ঘুরে বই কিনবেন। মূলত রুদ্র মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ্ এর কবিতার বই বিক্রি হচ্ছে —এমন স্টল খুঁজছেন তিনি।

শুধু রজধানী নয়, ঢাকার বাহির থেকেও দর্শনার্থীরা এসেছেন বইমেলায়। রাজবাড়ী থেকে ঢাকায় কোম্পানির কাজে এসেছিলেন আদনান, রাকিব, রুহুল ও সমাজ। তারা বই কিনতে নয়, মূলত বইমেলা কেমন জমেছে তা দেখার জন্য এসেছেন।

এদিকে, মেলার জ্ঞানকোষ প্রকাশনীর স্টলসহ বেশ কয়েকটি প্রকাশনীর স্টলে উঠতি যুবক-যুবতীদের বেশ ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। বেশির ভাগই দেখছিলেন হুমায়ুন আহমেদের বই। কেউ কেউ আবার উঠতি নতুন লেখকদেরও বই নাড়াচাড়া করে দেখছেন।

বইমেলায় যেমন অনেকে এসেছেন প্রিয় লেখকের বই কিনতে তেমনি আবার কেউ কেউ এর ফাঁকে নিজেকে মোবাইলের সেলফিতে বেধে নিচ্ছেন। মেলায় ছোট বাচ্চারাও এসেছে তাদের বাবা-মায়ের সঙ্গে। কেউ শুধু ঘুরছেন আর স্টলের বই নেড়েচেড়ে দেখছেন।

মেলার প্রবেশগেট গুলোতে ব্যাপক কড়া তল্লাশির মধ্য দিয়ে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে দর্শনার্থীদের। সন্দেহ হলে ব্যাগও তল্লাশি করছেন দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যরা।

মেলার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের অংশে এখন হাজারো মানুষে গমগম করছে। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভিড় আরও বাড়বে বলে মনে করছেন অনেকে। তবে ছুটির দিনে বই কেনার চেয়ে মেলায় ঘুরতে আসা দর্শনার্থীদের সংখ্যাই অনেক বেশি।


আপনার মতামত লিখুন :
এ জাতীয় আরও খবর