• রবিবার, ১৯ মে ২০২৪, ১১:৫৩ অপরাহ্ন
Notice
We are Updating Our Website

‘নির্বাচনে যাওয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিইনি, সিদ্ধান্ত জানাবেন চেয়ারম্যান’

নিজস্ব প্রতিবেদক
আপডেট : সোমবার, ২০ নভেম্বর, ২০২৩

জাতীয় পার্টির মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু বলেছেন, নির্বাচনে যাওয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিইনি। পরিবেশ-পরিস্থিতি দেখছি। সময়ের বাধ্যবাধকতা আছে, তাই নির্বাচনি কার্যক্রম এগিয়ে রাখছি৷ দলের চেয়ারম্যান ৩০ নভেম্বরের আগে নির্বাচনে যাওয়া-না যাওয়ার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দেবেন। মনোনয়ন ফরম বিক্রির কার্যক্রমে উপস্থিত থাকলেও মুজিবুল হক ফরম সংগ্রহ করেননি।

আজ সোমবার (২০ নভেম্বর) জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের বনানীর কার্যালয়ে ফরম বিক্রি শুরু হওয়ার পর জাতীয় পার্টির মহাসচিব এসব কথা বলেন।

মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরুর ঘোষণা দিলেও শেষ পর্যন্ত নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবে কি না, সে বিষয়ে জাতীয় পার্টি অবস্থান স্পষ্ট করেনি। নির্বাচনের পরিবেশ এখনো হয়নি মন্তব্য করে মুজিবুল হক আরও বলেন, তবে আশা করছি ,পরিবেশ হবে৷ নির্বাচন কমিশন ও সরকারের কার্যক্রম মিলিয়ে একটা আস্থার জায়গা তৈরি হবে ৷

তিনি বলেন জাতীয় পার্টি নির্বাচনমূখী দল। আমরা আশা করেছিলাম আনন্দমুখর পরিবেশে নির্বাচন হবে। দেশের মানুষ স্বতঃর্স্ফূতভাবে সেই নির্বাচনে ভোট দিতে পারবে। আমরা নির্বাচনে যাওয়ার প্রাথমিক কাজ শুরু করেছি। এটি নির্বাচনে যাওয়ার চুড়ান্ত সিদ্ধান্ত নয়। আমরা সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহবান জানাচ্ছি, নির্বাচনে যেনো সাধারণ ভোটাররা শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট দিতে পারে সেই পরিবেশ সৃষ্টি করুন।

চেয়ারম্যান প্রয়োজন মনে করলে, সিনিয়র নেতাদের সাথে আবারও আলোচনা করতে পারেন জানিয়ে চুন্নু বলেন-নির্বাচনের প্রস্তুতি আমাদের আছে, পার্টি চেয়ারম্যান শীঘ্রই নির্বাচনের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত জানাবেন।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ২০০৮ সালে শুধু আমরা মহাজোটের অংশ হিসেবে নির্বাচনে অংশ নেই। ২০১৪ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের সাথে আমাদের আসন ভিত্তিক নির্বাচনী সমঝোতা ছিলো। এখন জাতীয় পার্টি কোন জোটের সাথে নেই। আমরা তিনশো আসনেই আমাদের নিজস্ব প্রতীক নিয়ে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছি।

তিনি বলেন, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান বারবার বলেছেন, সকল দলের সাথে আলোচনা করুন। সবাই এক টেবিলে বসলে জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান একটি ফর্মুলা দিতে পারতেন। যাতে সংবিধানের আওতায় একটি সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব।

উল্লেখযোগ্য নেতৃবৃন্দের মধ্যে, প্রেসিডিয়াম সদস্য নাসরিন জাহান রতনা এমপি, ব্যারিস্টার শামীম হায়দার পাটোয়ারী এমপি, রানা মোহাম্মদ সোহেল (অব.) এমপি, আতিকুর রহমান আতিক, জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যানের উপদেষ্টা শেরীফা কাদের এমপি, নুরুল ইসলাম তালুকদার এমপি, ভাইস চেয়ারম্যান আহসান আদেলুর রহমান এমপি মনোনয়ন ফরম গ্রহণ করেছেন।

জাতীয় পার্টির নেতারা জানান, মনোনয়ন ফরম সংগ্রহের জন্য বিভাগ অনুযায়ী আটটি বুথ করা হয়েছে৷ প্রতিটি ফরমের মূল্য ৩০ হাজার টাকা। ২৪ নভেম্বর থেকে প্রতিদিন দুটি বিভাগের মনোনয়নপ্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার নেওয়া হবে। ২৪ নভেম্বর রংপুর ও রাজশাহী বিভাগ, ২৫ নভেম্বর খুলনা ও বরিশাল বিভাগ, ২৬ নভেম্বর ঢাকা ও ময়মনসিংহ বিভাগ এবং ২৭ নভেম্বর চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের সাক্ষাৎকার অনুষ্ঠিত হবে। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত সাক্ষাৎকার নেওয়া হবে।


আপনার মতামত লিখুন :
এ জাতীয় আরও খবর